| |

বর্তমান সরকার স্বচ্ছ নির্বাচন ব্যবস্থায় বিশ্বাসী-মতিয়া চৌধুরী

নকলা  সংবাদদাতা: আওয়ামীলীগের সভাপতি মন্ডলীর সদস্য, নকলা-নালিতাবাড়ীর এমপি ও কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী বলেছেন, ধন্য পিতার যোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা দেশের উন্নয়নে সরকারের বিভিন্ন স্তরে আমল পরিবর্তন আনয়ন করেছেন, মতিয়া চৌধুরী গত বৃহস্পতিবারে অনুষ্ঠিত কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচনের কথা উল্লেখ করে বলেন, সরকার স্বচ্ছ নির্বাচন ব্যবস্থায় বিশ্বাসী না হলে বিএনপির প্রার্থী সিটি মেয়র হতে পারতো না। কৃষিমন্ত্রী শুক্রবার সকালে নকলা পৌরসভার লাভা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে বক্তব্যদান কালে এসব কথা বলেন। মন্ত্রী, শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ার পাশাপাশি মানষিক বিকাশের জন্যে খেলাধুলা চর্চায় মনোযোগের আহব্বান জানান। তিনি আরো বলেন, বর্তমান সরকার ১ম শ্রেণী থেকে ১০ম শ্রেণী পর্যন্ত কোটি কোটি শিক্ষার্থীর মধ্যে বিনামুল্যে বই  বিতরণ করে যে ইতিহাস স্থাপন করেছে তা পৃথিবীর অন্য কোন দেশে আর নেই। শুধু তাই নয় বাংলাদেশ আজ খাদ্যে সয়ংসম্পূর্ণ, সবজি উৎপাদন ও মৎস্যচাষে পৃথিবী আমরা ৩য় ও ৫ম স্থানে অবস্থান করছি। দেশের এই সামগ্রিক অগ্রগতিই শেখ হাসিনা সরকারের কৃতিত্ব।
কৃষিমন্ত্রী জঙ্গীবাদ সম্পর্কে বলেন, ইসলাম কোন নিরীহ মানুষকে হত্যা করার অনুমতি দেয়নি, তাই জঙ্গীবাদীরা ইসলামের নামে মানুষ হত্যা করে নিজেদের অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখতে চায়। যা ইসলামে জায়েজ নেই এবং সরকারও তা করতে দিবে না। জঙ্গীবাদীর পথ অন্যায়ের পথ, গুমরার পথ, ভুল পথ, কাজেই ওই পথ ছেড়ে তাদের স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসা উচিত। এদিনে তিনি নকলা উপজেলার ১৯৫টি বিভিন্ন স্তরের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, নকলা থানা, নকলা হাসপাতাল ও উপজেলা পরিষদ কর্মচারীদের মধ্যে, ফুটবল, হ্যান্ডবল, ভলিবল, ক্রিকেট সেট, ব্যাডমিল্টন সেট ও দাবা সেট বিতরণ করেন।
এসময় শেরপুরের জেলা প্রশাসক ড. মল্লিক আনোয়ার হোসেন, পুলিশ সুপার রফিকুল হাসান গণি, নকলা উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ মাহবুব আলী চৌধুরী, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, রাজীব কুমার সরকার, শেরপুর খামারবাড়ীর উপ-পরিচালক মোঃ আশরাফ উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা মোস্তাফিজুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক বীরমুক্তিযোদ্ধা শফিকুল ইসলাম জিন্নাহ, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সারোয়ার আলম তালুকদার, পৌরমেয়র হাফিজুর রহমান লিটনসহ প্রশাসনের কর্মকর্তা ও স্থানীয় দলীয় নেতৃবৃন্দ এবং বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকগণ উপস্থিত ছিলেন।