| |

মুক্তাগাছায় কর্মকর্তার গাফিলতিতে কোটি টাকার সরকারি সম্পত্তি বেহাত

মুক্তাগাছা  প্রতিনিধি : মুক্তাগাছায় এক সরকারি কর্মকর্তার গাফিলতিতে কয়েক কোটি টাকার সরকারি সম্পত্তি বেহাত হওয়ার অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি বিভিন্ন মহলে ব্যাপক আলোচনার সৃষ্টি হয়েছে। এলাকাবাসী ওই সরকারি কর্মকর্তার তদন্তপূর্বক আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি করেছেন।
সূত্র মতে মুক্তাগাছা শহরের পাড়াটঙ্গী মৌজার এসএ এবং বিআরএস ১নং কালেক্টর খতিয়ানভূক্ত এসএ-৬৭৭ এবং বিআরএস-২৩৩০,২৩৩১. ২৩৩২,২৩৩৩ ও ২৩৩৪ নং মোট পাঁচ দাগে ৩৫ শতাংশ ভূমি সরকারি খাস খতিয়ানভূক্ত। উক্ত জমির মালিকানা দাবি করে শহরের পাড়াটঙ্গী এলাকার মোহাম্মদ আলী মৃধা ময়মনসিংহের বিজ্ঞ ল্যান্ড সার্ভে ট্রাইব্যুনালে মামলা দায়ের করেন। যার মামলা নং-১৭৩৬/১৩। উক্ত ভূমি মুক্তাগাছা পৌর ভূমি অফিসের আওতায় হওয়ায় মামলায় সরকার পক্ষের যথাযথ পদক্ষেপ দায়িত্ব ছিল তৎকালীর পৌর ভূমি কর্মকর্তার। কিন্তু পৌর ভূমি কর্তৃপক্ষ যথাযথ পদক্ষেপ না নেওয়ায় মামলার রায় সরকারের বিপক্ষে চলে যায়। জমির মালিক হয়ে যান মামলার বাদি মোহাম্মদ আলী মৃধা।
অনুসন্ধ্যানে জানা যায়, মামলার বাদি মোহাম্মদ আলীর মৃধার ছেলে আঃ মালেক মৃধা মুক্তাগাছা পৌর ভূমি অফিসের ইউনিয়ন সহ-ভূমি কর্মকর্তা। তিনি সরকারি কর্মকর্তা হয়ে সরকারের পক্ষে কাজ না করে মামলার বাদি তার পিতার পক্ষে মামলার রায় নেওয়ার জন্য তিনি নিরব ভূমিকা পালন করেন। পিতার পক্ষে রায় হওয়ায় পরোক্ষভাবে তিনি নিজেই জমির মালিক হয়েছেন। যার জন্য তিনি সরকারের কর্মচারী হয়েও সরকারের পক্ষে কাজ না করে রক্ষক হয়ে ভক্ষকের ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়েছেন। এ বিষয়টি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ তদন্ত করলেই এর রহস্য বেরিয়ে আসবে।