| |

নকলার ড্রাম সিডারের আউস ধান পরিদর্শন করলেন, ময়মনসিংহ অঞ্চলের কৃষি বিভাগের অতিরিক্ত পরিচালক অমিতাভ দাস

মুহাম্মদ হযরত আলী: রোববার শেরপুরের নকলা উপজেলায় ড্রাম সিডারের নেরিকা জাতের আউস ধান আবাদ পরিদর্শন করলেন, ময়মনসিংহ অঞ্চলের কৃষি বিভাগের অতিরিক্ত পরিচালক অমিতাভ দাস। উপজেলার টালকী ইউনিয়নের জুলহাস উদ্দিন ও নজরুল ইসলামের ৩ একর জমিতে রোপনকৃত নেরিকা জাতের আউস ধান আবাদ পরিদর্শন কালে তার সাথে ছিলেন, শেরপুরের উপ-পরিচালক মোঃ আশরাফ উদ্দিন ও অতিরিক্ত উপ-পরিচালক মোঃ আব্দুস ছাত্তার, নকলা উপজেলা কৃষি অফিসার হুমায়ন কবির প্রমুখ।
শেরপুর খামার বাড়ির উপ-পরিচালক আশরাফ উদ্দিন জানান, ড্রাম সিডারের মাধ্যমে ধান রোপন করতে কোন জালানী খরচ হয় না এবং দক্ষ শ্রমিক হলে প্রতিদিন প্রায় ২ একর জমিতে ধান রোপন করা যায়। ফলে বীজ তলা তৈরি বা রোপন করার প্রয়োজন হয় না এবং বীজ তলার সময় বাচিঁয়ে সরাসরি কুসি দেওয়া ধান ড্রাম সিডারের মাধ্যমে জমিতে রোপন করায় স্বাভাবিক সময়ের চেয়ে ৭-১০ দিন আগেই এ ধান পাকে এবং কাটার যোগ্য হয়। উপজেলা কৃষি অফিসার হুমায়ুন কবীর জানান ড্রাম সিডার একটি ধান রোপনের নতুন প্রযুক্তির নাম। নকলা উপজেলায় এবছর ১০ একর জমিতে ড্রাম সিডারের মাধামে নেরিকা জাতের আউস ধান রোপন করা হয়েছে। আবহাওয়া অনূকুল থাকলে এবং রোপনকৃত ধানের নিয়মিত পরিচর্চা করলে আশানুরুপ ফলন হবে।