| |

ইসলামপুরে ভূয়া ডাক্তার আটক

ইসলামপুর প্রতিনিধি ॥ জামালপুরের ইসলামপুর উপজেলায় দীর্ঘদিন ধরে মানুষকে ধোকা দিয়ে চিকিৎসার নামে প্রতারণার অভিযোগে ইসলামপুর থানার পুলিশ বৃহস্পতিবার রাতে আশরাফুল ইসলাম চৌধুরী নামের একজন ভূয়া ডাক্তারকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরন করেছে।জানা গেছে, ভূয়া ডাক্তার আশরাফুল ইসলাম চৌধুরী উরফে দিপুর বাড়ি বেলগাছা ইউনিয়নের কাছিমা গ্রামে। তিনি ইসলামপুর পৌরসভার মোশারফগঞ্জ বাজারের মাহী মেডিক্যাল হল-এ দীর্ঘদিন ধরে নিয়মিত রোগী দেখে আসছিলেন। তিনি নিজেকে মা ও শিশু, চর্ম ও যৌন রোগে বিশেষ প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত সার্জারি কাজে অভিজ্ঞ এবং এক্স-ইমারজেন্সি মেডিক্যাল অফিসার পরিচয় দিতেন। ব্যক্তিগত ব্যবস্থাপত্রেও ‘ডা. এ কে এম আশরাফুল ইসলাম চৌধুরী ‘এক্স-ইমারজেন্সি মেডিক্যাল অফিসার, এশিয়ান জেনারেল হসপিটাল লি., জেনারেল প্রেকটিশিয়ান ডিপ্লোমা ইন মেডিসিন, মা ও শিশু রোগ, চর্ম ও যৌন রোগে বিশেষ ট্রেনিং প্রাপ্ত যাবতীয় সার্জারি’ কাজে অভিজ্ঞ উল্লেখ রয়েছে।তাকে নিয়ে ইতিমধ্য একাধিকবার অভিজ্ঞ চিকিৎসক বসছেন বলে মাইকিং করা হয়। এতে দিনদিন চিকিৎসা নেওয়া রোগীদের ভিড় বাড়তে থাকে। সেই সুযোগে কথিত চিকিৎসক হাতিয়ে নেন নিরীহ অসহায় মানুষের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা। এদিকে মাইকিং শুনে পৌর শহরের টঙ্গেরআগলা গ্রামের ক্যান্সারের রোগী ওই চিকিৎসকের শরণাপন্ন হন। এ সময় কথিত ডাক্তার চিকিৎসার নামে বিভিন্ন ওষুধ দিয়ে প্রতিনিয়তই সাধারণ মানুষের কাছ থেকে বিপুল অঙ্কের টাকা হাতিয়ে নেন। তার চিকিৎসায় ক্যান্সারের রোগী গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে ইনজেকশন দিতে হবে বলে এবং তার চেম্বারে দেওয়া যাবে না তাকে ডেফলা সেতুতে যেতে বলেন। কথিত ডাক্তারের কথামত রোগীর স্বজনেরা ওই সেতুতে যান এবং ইনজেকশন দেন । এতে ওই রোগীর স্বজনদের সন্দেহ হলে তারা এলাকায় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের বিষয়টি জানান।

এরই প্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এলাকাবাসী ক্যান্সারের রোগীকে নিয়ে ফের কথিত চিকিৎসকের কাছে যান। এ সময় চিকিৎসার নামে রোগীর কাছ থেকে আরও ২ হাজার ৪০০ টাকা নেন। পরে এলাকাবাসী তিনি কি কি রোগের বিশেষজ্ঞ সে বিষয়ে জানতে চান এবং সনদ দেখতে চান। এ সময় কথিত চিকিৎসক কোনো সদুত্তর দিতে না পারায় মোশারফগঞ্জ বাজার বণিক সমিতির সভাপতি সাফিউল হক বিষয়টি পুলিশে খবর দেন। রাতেই ইসলামপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আবু রায়হানের নেতৃত্বে একদল পুলিশ ওই ভূয়া ডাক্তারকে আশরাফুল ইসলাম চৌধুরীকে গ্রেপ্তার করেন।

 

ইসলামপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আবু রায়হান এ প্রতিবেদককে জানান, ভূয়া ডাক্তার আশরাফুল ইসলামকে প্রতারনা মামলায় জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে।