| |

ফুলপুরে বন্দুকযুদ্ধে ছিনতাইকারী নিহত

ফুলপুর প্রতিনিধি :
ময়মনসিংহের ফুলপুরে শনিবার ভোর রাতে ডিবি পুলিশের সাথে বন্ধুক যুদ্ধে আব্দুর রাজ্জাক নামে এক ছিনতাইকারী নিহত হয়েছেন। সে চালককে হত্যা করে সিএনজি অটোরিকশা ছিনতাইয়ের প্রধান আসামি ছিল। নিহতের বাড়ি বরগুণা জেলার সদর উপজেলার ছোট লবন খোলা গ্রামে বলে জানা গেছে।
ডিবি পুলিশ ও এলাকাবাসি সুত্রে জানা যায়, শেরপুর- ময়মনসিংহ সড়কের ফুলপুর উপজেলার সাহাপুর নামকস্থানে গত ২৪ মার্চ সকালে শেরপুর জেলার নকলা উপজেলার পাঠাকাটা গ্রামের আলিম উদ্দিন নামে এক সিএসজি অটোরিকশা চালকের লাশ পাওয়া যায়। তিনি ২১ মার্চ ভাড়ায় সিএনজি অটোরিকশা চালাতে বাড়ি থেকে বের হলে হত্যা করে অটোরিকশা ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছিল। ময়মনসিংহ ডিবি পুলিশ চালক আলিম উদ্দিন হত্যা মামলার প্রধান আসামি বরগুণা জেলার সদর উপজেলার ছোট লবন খোলা গ্রামে মৃত আব্দুল লতিফের পুত্র আব্দুর রাজ্জাককে (৩৫) গ্রেফতার করে শনিবার ভোর রাতে সহযোগিদের ধরতে শেরপুর- ময়মনসিংহ সড়কের ফুলপুর পৌরসভার আনোয়ার খিলা গ্রামের মরা খলা নামকস্থানে অভিযান চালান। এ সময় বন্ধুক যুদ্ধে ছিনতাইকারী আব্দুর রাজ্জাক মারা যায়। এছাড়া বন্ধুক যুদ্ধে গোয়েন্দা পুলিশের এসআই জিন্নাহ ও অপর এক কনস্ট্রেবল আহত হন।
ঘটনা স্থলের কাছের মুদি ব্যবসায়ী সেকান্দর আলী জানান, ফজরের আজানের সময় পুলিশের লোকজন আমাকে দোকান থেকে ডেকে নিয়ে যায়। আমি গিয়ে দেখি পুলিশের গাড়িতে একজনের লাশ রয়েছে। তারা রাস্তার পাশ থেকে ২ টি রাম দা গাড়িতে উঠাচ্ছে। মাটিতে রক্ত পড়ে রয়েছে। পাশের বাড়ির রফিকুল ইসলাম জানান, আমরা কিছুই টের পাইনি। ফুলপুর থানার অফিসার ইনচার্জ একেএম মাহবুব আলম জানান, ঘটনার সম্পর্কে আমরা তেমন কিছু জানি না। তবে সিএনজি চালক আলিম উদ্দিন হত্যার রহস্য দ্রুত উদঘাটন হতে যাচ্ছে। ময়মনসিংহ ডিবি পুলিশের অফিসার ইনচার্জ আশিকুর রহমান জানান, আলিম উদ্দিন হত্যা মামলার আসামিদের ধরতে অভিযান চালালে পুলিশের সাথে বন্ধুক যুদ্ধ বাধে। এ সময় সন্ধিগ্ধ আসামি আব্দুর রাজ্জাক নিহত ও এসআইসহ ২ পুলিশ আহত হয়েছেন।