| |

বীরাঙ্গনা সখিনা (বি, এস) সিলভার পেন অ্যাওয়ার্ড রিভিউ কার্যক্রমের ফলাফল ঘোষণা

গত ২ জুন ২০১৮ রোজ শনিবার সকাল ১০ ঘটিকার সময় দি ইলেক্টোরাল কমিটি ফর বীরাঙ্গনা সখিনা সিলভার পেন অ্যাওয়ার্ড এর প্রেসিডেন্ট জনাব মোঃ ফজর আলী, প্রধান শিক্ষক (অবঃ) গৌরীপুর আর,কে সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় এর সভাপতিত্বে মযমনসিংহের গৌরীপুর উপজেলা শহরে অবস্থিত উপজেলা কৃষি অফিস সভা কক্ষে বি.এস. ইলেক্টোরাল কমিটির ভাইস প্রেসিডেন্ট ও রিটার্নিং অফিসার জনাব প্রফেসর ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ, সুপারিনটেনডেন্ট (অবঃ) সরকারী টি,ভি,আই চারটি ক্ষেত্রে ২৭ জন প্রতিযোগিদের ইলেক্টোরাল ভোটের ফলাফল ঘোষনা করেন।

প্রতিযোগিদের মধ্যে চারটি ক্ষেত্রে যারা বিজয়ী হয়েছেন, তাদের নাম ঘোষনা করেন। চারটি ক্ষেত্রে ১৪ জন বিজয়ী ব্যক্তি হয়েছেন, তারা হলেন সাংবাদিকতা ও আলোকচিত্র ক্ষেত্রে (৫ জন) যথাক্রমে- শিক্ষানুরাগী ও রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব দৈনিক ইত্তেফাক এর গৌরীপুর উপজেলা প্রতিনিধি- শফিকুল ইসলাম মিন্টু, (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-১৪৫,৫৬০) নেত্রকোনা জেলা প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সাংবাদিক – হায়দার জাহান চৌধুরী (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-৮৬,৯৯০) প্রথম আলো’র ময়মনসিংহ প্রতিনিধি-কামরান পারভেজ (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-৭০,৮১০) সময় টিভি এর ব্যুরো প্রধান, ময়মনসিংহ – মো. হারুনুর রশিদ (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-৬৩,২৭০) এবং সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট অনলাইন নিউজ পোর্টাল ‘বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম’ -ইকরাম-উদ দৌলা (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-২১,৯৯০) গবেষনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ক্ষেত্রে( ১ জন)- ফ্রিল্যান্স গবেষক-ইঞ্জিনিয়ার মিথুন কুমার দাস, টাঙ্গাইল (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-১৪৭,৩৬০) শিল্পকলা, শিক্ষা, ভাষা ও সাহিত্য ক্ষেত্রে(৪ জন)- কিশোরগঞ্জ জেলার সাংবাদিক, লেখক ও গবেষক- মু আ লতিফ,( তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-১১৬,৪৪০), সাংবাদিক, লেখক ও গবেষক- আলী আহাম্মদ খান আইয়োব , পূর্বধলা-নেত্রকোণা (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-৯৯,৮৭০) নির্বাহী পরিচালক ও শিক্ষানুরাগী, পরিবেশ উন্নয়ন ফাউন্ডেশনের (আসপাডা) -আবদুর রশিদ (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-৭১,৪১০) শিক্ষানুরাগী ও প্রতিবন্ধিতা জয়ী – ফারুক আহাম্মেদ, তারাকান্দা-ময়মনসিংহ (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট -৬৯,৯৯০) এবং সমাজসেবা ক্ষেত্রে (৪ জন)- আলোকিত মানুষ – অধ্যাপক ডা.মুক্তাদির, গৌরীপুর –ময়মনসিংহ (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-১৫৫,৬৬০) বিশিষ্ট ব্যবসায়ী, শিল্পপতি, দানবীর ও সমাজসেবক – ভালুকার আলোকিত মানুষ -এম এ ওয়াহেদ (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-৭৩,৯৮০) বিশিষ্ট ব্যবসায়ী, দানবীর ও সমাজসেবক- রাধাচরণ সাহা রায়, মোহনগঞ্জ, নেত্রকোনা (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-৬৩,২২০) এবং জামালপুর এর শিল্পপতি ও সমাজসেবক-ইঞ্জিনিয়ার মোঃ মোজাফফর হোসেন (তার ভোট পাওয়ার পয়েন্ট-৫২,৯৬০) এ কমিটির লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য হচ্ছে প্রতি ২ বছর প্রসংশনীয় ও গৌরবোজ্জ্ব¡ল অবদানের জন্য চার বা এর অধিক ক্ষেত্রে বীরাঙ্গনা সখিনা সিলভার পেন অ্যাওয়ার্ড প্রদান করা। এ বছর (২০১৮) ইলেক্টোরাল ভোটে বি.এস. অ্যাওয়ার্ড প্রতিযোগিতা Ñ২০১৬ সম্পন্ন হয়েছে। অ্যাওয়ার্ড প্রতিযোগিতায় ২৫১ জন ইলেক্টরদের মধ্যে ২৪৩ জন তাদের ভোট প্রদান করেছেন। তন্মেধ্যে কিছু ইলেক্টর ই-মেইল বা তাদের প্রতিনিধির মাধ্যমে ভোট প্রদান করেছেন। প্রতিযোগিদের প্রোফাইল রিভিউ করে প্রতিটি ইলেক্টর তার প্রদত্ত ভোট পাওয়ার পয়েন্ট তার ব্যালটে দু’ ভাগে ভাগ করে ভোট দিয়েছেন। যেমন পছন্দের ১ম ব্যক্তিকে ৭০% (বেস্ট ওয়ান ভোট) এবং পছন্দের ২য় ব্যক্তিকে ৩০% (বেটার ওয়ান ভোট) ভোট দিয়েছেন।। প্রসংগত উল্লেখ্য যে, গেীরীপুরের এসিক এসোসিয়েশন এবং ক্রিয়েটিভ এসোসিয়েশনের সার্বিক সহযোগিতায় এবং তরুণ গবেষক রায়হান উদ্দিন সরকার (বাংলাদেশের প্রথম ইলেক্টোরাল ভোটিং সিস্টেমের প্রবর্তক) র্এ ফর্মুলা অনুযায়ী অনুষ্ঠিত হয়েছে বি.এস. অ্যাওয়ার্ড প্রতিযোগিতা। এ প্রতিযোগিতায় ইলেক্টোরাল ভোট দানের তৃতীয়তম পাইলট কার্যক্রম সফল হয়েছে। আগামীতে ময়মনসিংহ শহরসহ বিভিন্ন জেলা থেকে আরো ৫০ জন ইলেক্টর নেওয়া হবে। ’বীরাঙ্গনা সখিনা সিলভার পেন অ্যাওয়ার্ড-২০১৮’ এর জন্য প্রত্যেক ইলেক্টোরকে ১টি করে ’ পেন অ্যাওয়াড অ্যাফেয়ার্স ম্যাগাজিন’ (সফ্ট অ্যান্ড হার্ড কপি) প্রদান করা হবে। অ্যাওয়ার্ড প্রদান অনুষ্ঠান এ বছর ( ২০১৮) ময়মনসিংহ শহরে অনুষ্ঠিত হবে।

পরিশেষে দি ইলেক্টোরাল কমিটি ফর বীরাঙ্গনা সখিনা সিলভার পেন অ্যাওয়ার্ড এর প্রেসিডেন্ট জনাব মোঃ ফজর আলী অ্যাওয়ার্ড এর নামকরণ ও সংগঠন সম্বন্ধে বলেন, ময়মনসিংহের গৌরীপুরে “দি ইলেক্টোরাল কমিটি ফর বীরাঙ্গনা সখিনা সিলভার পেন অ্যাওয়ার্ড” নামে একটি সংগঠনটি ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলায় অবস্থিত ঐতিহাসিক কেল্লা তাজপুরের অধিপতি মোগল সম্রাটের অনুগত উমর খাঁর কন্যা এবং ঈশা খাঁর শেষ বংশধর জঙ্গল বাড়ির দেওয়ান ফিরোজ খাঁর পতিœ বীরাঙ্গনা সখিনা বিবির নামে এই অ্যাওয়ার্ড এর নামকরণ করা হয়। তাছাড়া অ্যাওয়ার্ড প্রদানের মাধ্যমে ময়মনসিংহের গেীরীপুর উপজেলায় সখিনা বিবির মাজার, মোগল এবং সুলতান আমলের ইতিহাস অবহিত করা।এ বছর মোট ২৫১ জন ইলেক্টর নিয়ে এই ইলেক্টোরাল কমিটি গঠন করা হয়েছে। ২৫১ জন ইলেক্টোরদের মোট ভোট পাওয়ার পয়েন্ট ৩ লক্ষ ৯০ হাজার ২ শত।