| |

বাড়ি থেকে নিখোঁজের ২ দিন পর জঙ্গল থেকে কাঁথা মুড়ানো গৃহবধূর লাশ উদ্ধার

গৌরীপুর (ময়মননিসংহ) সংবাদদাতা ॥
বাড়ি থেকে নিখোঁজের দু’দিন পর প্রতিবেশী বাড়ির জঙ্গল থেকে কাঁথা মুড়ানো অবস্থায় উদ্ধার করা হলো নিখোঁজ গৃহবধূ বেগম (৪০) এর দুর্গন্ধযুক্ত লাশ। ময়মনসিংহের গৌরীপুর থানার পুলিশ রোববার (২২ জুলাই) দুপুরে উপজেলার রামগোপালপুর ইউনিয়নের ধূরুয়া আগপাড়া গ্রামের পরিত্যক্ত মীর বাড়ির জঙ্গল থেকে ওই গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করে। নিহত গৃহবধূ উল্লেখিত গ্রামের ছিদ্দিকুর রহমানের স্ত্রী।
নিহতের স্বামী ছিদ্দিকুর রহমান জানান, শুক্রবার (২০ জুলাই) সন্ধ্যার পর থেকে তার স্ত্রী বেগম বাড়ি থেকে নিখোঁজ হয়। এরপর থেকে তাকে এলাকায় খুজাখুঁজি করে পাওয়া যাচ্ছিল না। রোববার সকাল ৯টার দিকে প্রতিবেশী মীর বাড়ির জঙ্গলে দুর্গন্ধযুক্ত লাশের সন্ধান পাওয়া যায়।
স্থানীয় লোকজন জানায়, ঘটনারদিন সকাল ৯টার দিকে সবুজ নামে এক ব্যক্তি উল্লেখিত জঙ্গলে লাশটি পড়ে থাকতে দেখে তাদেরকে জানায়। বিষয়টি পুলিশকে জানানো হলে খবর পেয়ে গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ আশিকুর রহমানের নেতৃত্বে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে কাঁথা দিয়ে মুড়ানো অবস্থায় ওই গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করে। তাঁর মুখমন্ডল হালকা আগুন পুড়ানো।
এলাকাবাসী আরো জানায়, জঙ্গল সংলগ্ন মীর বাড়ির সৈয়দ আল্লাদ মিয়ার পরিত্যক্ত ঘরের মেঝেতে কে বা কারা একটি গর্ত খুঁড়ে রাখে। তাদের ধারণা ওই গৃহবধূকে হত্যার পর তার লাশ গুম করার চেষ্টা করা হয়েছিল। তাঁর মুখমন্ডল আগুন পুড়িয়ে লাশের পরিচয় মুচে ফেলতে চেয়েছিল।
গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ আশিকুর রহমান জানান, নিখোঁজ হওয়ার বিষয়টি তার স্বামী পুলিশ বা প্রতিবেশী কাউকেই জানায়নি। লাশ ময়মনা তদন্দের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ মর্গে পাঠানো হয়েছে। মামলা প্রক্রিয়াধীন। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তার স্বামীকে আটক করা হয়েছে।