| |

জামালপুরের মেলান্দহে সাত বৎসরের শিশু ধর্ষিত

জামালপুর প্রতিনিধি॥জামালপুরের মেলান্দহ উপজেলায় সাত বছরের এক মেয়ে শিশু ধর্ষিত হয়েছে। গত ২ সেপ্টেম্বর রবিবার দুপুরে উপজেলার নয়ানগর ইউনিয়নের নয়ানগরপূর্বপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। প্রতিবেশী আজিজুল হকের ছেলে নবম শ্রেণির ছাত্র সুমনকে আসামি করে গত রবিবার রাত ৮টায় মেলান্দহ থানায় এবিষয়ে একটি মামলা দায়ের হয়েছে। ধর্ষিত শিশুটি একই গ্রামের দরিদ্র ইজিবাইক চালকের মেয়ে এবং স্থানীয় একটি কিন্ডারগার্টেনে নার্সারি পড়–য়া শিক্ষার্থী।
এলাকাবাসি ও শিশুর মা জানায়,ওইদিন সাত বৎসরের মেয়েটি দুপুরে পাশের বাড়ির আজিজুল হকের উঠানে খেলাধুলা করছিল। এসময় আজিজুল হকের লম্পট ছেলে সুমন তাকে ফুসলিয়ে ঘরে ডেকে নিয়ে জোর পুর্বক ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। পরে শিশুটি চিৎকার করে কাঁদতে থাকে। এসময় শিশুর মাসহ বাড়ীর লোকজন জানতে চাইলে সে সব ঘটনা খুলে বলে। গুরুতর রক্তাক্তবস্থায় দেখতে পেয়ে অসুস্থ শিশুটি প্রথমে মেলান্দহ পরে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে। জামালপুর জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. মো: শফিকুজ্জামান বলেন, ধর্ষণের শিকার শিশুটির ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য কিছু আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে।
সোমবার সকালে শিশুটির ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন করা হবে। এব্যাপারে মেলান্দহ থানার ওসি গাজী মো: সাখাওয়াত হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ধর্ষিত শিশুর পিতা বাদী হয়ে প্রতিবেশী সুমনকে আসামি করে থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। বর্তমানে সুমনকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলে জানান।
এ ঘটনার পর থেকে ধর্ষণকারী সুমন ও তার পরিবারের লোকজনরা বাড়িঘর ছেড়ে গাঢাকা দিয়েছেন।