| |

বকশীগঞ্জে ঝুঁকিপূর্ণ ব্রিজে দুর্ঘটনার আশঙ্কা, পুনঃনির্মাণের দাবি এলাকাবাসীর

জিএম সাফিনুর ইসলাম মেজর :
জামালপুরের বকশীগঞ্জে ঝুঁকিপূর্ণ একটি ব্রিজ পুনঃনির্মাণ না হওয়ায় দুর্ঘটনার আশঙ্কা করা হচ্ছে। ব্রিজটি পুনঃনির্মাণ না হলে যেকোন সময় বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, মেরুরচর ইউনিয়ন পরিষদ থেকেচিনার চর রাস্তার পাটাধোয়া খালের উপর ১৯৯৮ সালে ২০ মিটার একটি সরু ব্রিজ নির্মাণ করা হয়। উপজেলা এলজিইডির তত্ত্বাবধানে ব্রিজটি নির্মাণ করা হয়। এই রাস্তা দিয়ে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ, যানবাহন চলাচল করে থাকে। নি¤œমানের সরঞ্জামাদি দিয়ে ব্রিজের নির্মাণ কাজ করায় কয়েক বছরের মাথায় ব্রিজের এক পাশের রেলিং ভেঙে পড়ে গেছে। এতে করে বিভিন্ন সময় দুর্ঘটনার ঘটনাও ঘটেছে।
মেরুরচর গ্রামের ইউপি সদস্য ছামিউল হক নেদা জানান, আতঙ্ক নিয়ে মানুষ এই ব্রিজ পার হয়। একই সঙ্গে শিশুদের নিয়ে আমাদের দুশ্চিন্তায় থাকতে হয়।
ব্রিজটি সরু ও রেলিং ভেঙে যাওয়ায় ভারি কোন যানবাহন চলাচল করতে পারে না। অনেকইে আতঙ্কের কারণে বিকল্প রাস্তা দিয়ে চলাচল করে থাকেন।
চিনার চর গ্রামের দুলাল মিয়া জানান, বন্যার সময় এই রাস্তাটি আমাদের একমাত্র ভরসা। কিন্তু কখন কোন দুর্ঘটনা ঘটে তা শঙ্কা সত্ত্বেও আমাদের যেতে হয়।
স্থানীয় মেরুরচর , চিনার চর, বাগাডুবি, পূর্ব কলকিহারা , খেওয়ার চর ,জাগির পাড়া গ্রামের মানুষের দাবি অবিলম্বে ঝুঁকিপূর্ণ ব্রিজটি ভেঙে নতুন করে আরেকটি ব্রিজ নির্মাণ করা হোক। এ নিয়ে স্থানীয় এলাকাবাসী বকশীগঞ্জ উপজেলার স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরে (এলজিইডি) যোগাযোগ করে ব্রিজটির বেহাল অবস্থার কথা জানিয়েছেন।
এ ব্যাপারে উপজেলা প্রকৌশলী মোহাম্মদ রমজান আলী জানান, আমরা ব্রিজটির অবস্থা সম্পর্কে অবগত আছি। ইতোমধ্যে সার্ভে করে মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়েছে। শিগগিরই নতুন ব্রিজ নির্মাণের জন্য টেন্ডার দেওয়া হবে।