| |

‘বাদীকে প্রাণনাশের হুমকী’ নান্দাইলে আ’লীগ নেতার হত্যাকারীদের শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন ও স্বারকলিপি

নান্দাইল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি: ময়মনসিংহের নান্দাইলে মোয়াজ্জেমপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি মোর্শেদ আলীর হত্যার সাথে জড়িতদের অবিলম্বে গ্রেফতার ও ফাসিঁর দাবীতে বুধবার (২৭শে ফেব্রুয়ারি) কানারামপুর বাজার নামকস্থানে মহাসড়কে এক বিশাল মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। দীর্ঘ আড়াই ঘন্টা মানববন্ধন শেষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, স্ব-রাষ্ট্র মন্ত্রী, আইজিপি, বিভাগীয় কমিশনার, জেলা প্রশাসক, ডিআইজি, পুলিশ সুপার বরাবর নান্দাইল মডেল থানার ওসি কামরুল ইসলাম ভূইয়ার নিকট স্বারকলিপি হস্তান্তর করেন। ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ ও কানারামপুর বাজার ব্যবসায়ীবৃন্দের আয়োজনে উক্ত মানববন্ধনে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ, অঙ্গ-সহযোগী সংগঠন, ব্যবাসায়ীবৃন্দ সহ এলাকার সর্বস্তরের জনগণ অংশগ্রহন করে। এসময় এলাকাবাসী মহাসড়কের রাস্তা অবরোধ করে দৃঢ় অবস্থান নেওয়ায় মহাসড়কের দুই দিকে প্রচুর যানজট দেখা যায়। ময়মনসিংহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ও নান্দাইল মডেল থানার ওসি তাদের দাবী ও স্বারকলিপি গ্রহন সহ আইনী ব্যবস্থা নিবেন বলে আশ্বস্ত করলে এলাকাবাসী অবরোধ ও মানববন্ধন তুলে নেন। পরে নিহত মোর্শেদ আলীর স্ত্রী হত্যা মামলার বাদী তাসলিমা আক্তারের আয়োজনে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে তিনি স্বামীর হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও দ্রুত বিচার আইনে শাস্তি সহ আসামীরা জামিনে এসে বাদীনিকে প্রাণনাশের হুমকি ও উল্টো মিথ্যা মামলা দেওয়ার বিষয়ে প্রশাসনের কাছে নিজ-পরিবারের নিরাপত্তার দাবী জানান। মামলার বাদী আরও জানান, এঘটনায় নান্দাইল মডেল থানায় সুনির্দিষ্ট নাম উল্লেখ সহ ৩২ জনকে আসামী ও সহযোগী অজ্ঞাত নামাদের নাম একটি মামলা দায়ের করেন। মামলা নং ০২ তারিখ ০২/০২/২০১৯ইং। অথচ ইতিমধ্যে মামলার এজাহার ভূক্ত ২৮ জন আসামী অতি দ্রুত বিজ্ঞ হাই কোর্ট থেকে জামিনে মুক্ত হয়ে এলাকায় এসে ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করছে ও বাদীনিকে মামলা প্রত্যাহার অথবা মীমাংসার করার জন্য বিভিন্ন কলাকৌশল অবলম্বন করছেন বলে জানান বাদী তাসলিমা আক্তার। উল্লেখ্য গত ২রা ফেব্রুয়ারি/১৯ইং সন্ত্রাসীরা ফাঁদ পেতে মোর্শেদ আলীকে নির্মমভাবে কুপিয়ে হত্যা করে।