| |

চাঞ্চল্যকর সোনালী ব্যাংকের ১৬ কোটি টাকা চুরি প্রধান আসামী সোহেল রানার ৫ বছরের কারাদন্ড

নজরুল ইসলাম খায়রুল, কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি: কিশোরগঞ্জের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ হামিদুল ইসলাম, চাঞ্চল্যকর সোনালী ব্যাংকের ১৬ কোটি ৪০ লক্ষ টাকা চুরির অপরাধে প্রধান আসামী সোহেল রানা ওরফে মোঃ হাবিব ওরফে ইউসুফ মুন্সীকে দঃ বিঃ ৩৮০ ধারায় ৫ বছরের সশ্রম কারাদন্ড, ৫ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ৫ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেছেন।
গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এ রায় ঘোষণা করা হয়। ২০১৪ সনের ২৬শে জানুয়ারী সুরঙ্গ কেটে সোনালী ব্যাংক লিঃ, কিশোরগঞ্জ শাখা থেকে ১৬ কোটি ৪০ লাখ টাকা চুরি করে নিয়ে যায়। পরে সোহেল রানাকে ২০১৪ সনের ৩০ জানুয়ারি ঢাকার কদমতলী থেকে ১৬ কোটি ১৯ লাখ ৫৪ হাজার ৩৮০ টাকাসহ র‌্যাব গ্রেফতার করে। পরে আরও ২ লাখ ৫০ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়।
এ ব্যাপারে সোনালী ব্যাংকের ডিজিএম মোঃ আমানুল্লাহ শেখ বাদী হয়ে কিশোরগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করলে র‌্যাবের এএসপি রাজিব কুমার দেব সোহেল রানা, ইদ্রিছ মুন্সী, মাহিলা আক্তার হীমা ও সিরাজ উদ্দিন ভূঞার বিরুদ্ধে অভিযোগ পত্র দাখিল করেন।
গত মঙ্গলবার অভিযোগ গঠনের দিন সোহেল রানা তার উপর আনিত অভিযোগ স্বীকার করায় তাকে উপরোক্ত দন্ড প্রদান করেন। বাকীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে সাক্ষ্য গ্রহনের দিন ধার্য্য করেন। মামলাটির সরকার পক্ষে ছিলেন এপিপি রামেন্দ্র চন্দ্র তালুকদার ও সোনালী ব্যাংক নিযুক্ত আইনজীবী এ.বি.এম লুৎফর রাশিদ রানা।