| |

মুক্তাগাছায় বিস্ফোরক মামলার আসামীকে পূনর্বহালের দাবিতে স্কুল শিক্ষার্থীদের ক্লাস বর্জন অব্যাহত

মুক্তাগাছা প্রতিনিধি : একটি বিস্ফোরক মামলার আসামী ও মলাজানি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষককে পূনর্বহালের দাবিতে অনবরত ক্লাস বর্জন কর্মসূচী পালন করছে ওই বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। সোমবার থেকে তারা ক্লাস বর্জন করে বিক্ষোভ মিছিলসহ নানা কর্মসূচী পালন করে আসছে। এতে অচল অবস্থা বিরাজ করছে বিদ্যালয়ের শিক্ষা কার্যক্রম।
উপজেলার মলাজানি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বজলুর রশিদ মুক্তাগাছা থানার একটি বিস্ফোরক মামলায় গত বছরের জানুয়ারী মাসে থানা পুলিশের হাতে গ্রেফতার হন। ওই সময় তাকে সাময়িক বহিস্কার করা হয়। ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয় ওই বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক আঃ আউয়ালকে। দীর্ঘ ৮ মাস জেল খেটে সম্প্রতি জামিনে মুক্ত হন বিস্ফোরক মামলার আসামী প্রধান শিক্ষক বজলুর রশিদ। এর পর থেকেই নানা ফন্দি খোঁজতে থাকেন পূনর্বহালের। ছাত্র ও অভিভাবকদের ভূল ধারণা দিয়ে শিক্ষার্থীদের নামিয়ে দেন ক্লাসর বর্জন ও বিক্ষোভ মিছিলসহ নানা কর্মসূচীতে। গত সোমবার থেকে শিক্ষার্থীরা প্রধান শিক্ষকের পূনর্বহালের দাবিতে অনির্দিষ্টকালের ক্লাস বর্জন শুরু করেছে। গতকাল শনিবার দুপুর ১২টায় ওই বিদ্যালয়ে গিয়ে দেখা যায় স্কুল ফাঁকা, শিক্ষকরা অফিস রুমে বসে অলস সময় পাড় করছেন।
আন্দোলনে থাকা ছাত্র প্রতিনিধি দশম শ্রেনীর শিক্ষার্থী খোরশেদ আলম সাংবাদিকদের বলেন, মিথ্যা মামলায় আসামী করে প্রধান শিক্ষককে(স্যার) ফাঁসানো হয়েছে। তার পদে পূনর্বহাল না হওয়া পর্যন্ত আমরা ক্লাসে যাব না।
বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আঃ সামাদ মাস্টার ও ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আঃ আউয়াল বলেন, বিস্ফোরক মামলায় সাময়িক বরখাস্ত প্রধান শিক্ষকের প্ররোচনায় শিক্ষার্থীরা ক্লাস বর্জন করে আসছে। শিক্ষার্থীদের জীবন নিয়ে তার এ ধরণের কাজ করা ঠিক হয়নি।
শিক্ষার্থীদের ক্লাস বর্জনে প্ররোচনার বিষয়টি অস্বীকার করে বিদ্যালয়ের সাময়িক বরখাস্ত প্রধান শিক্ষক বজলুর রশিদ সাংবাদিক বলেন, শিক্ষার্থীদের ক্লাস বর্জনে তার কোন নির্দেশনা নেই।
উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার শাহাদাৎ হোসেন বলেন,বিষয়টি শুনেছি ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ও সাময়িক বরখাস্ত প্রধান শিক্ষকের মাঝে দ্বন্ধ চলছে।
ইউএনও ড.উম্মে আফছারী জহুরা বলেন,এ বিষয়ে কিছুই জানি না তবে খবর নিচ্ছি কেন শিক্ষার্থীরা ক্লাস বর্জন করছে।