| |

ঝিনাইগাতীতে শিক্ষার্থীকে জুতা পেটা করায় থানায় অভিযোগে

ঝিনাইগাতী প্রতিনিধি ঃ শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার বাকাকুড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীকে জুতাপেটা করার অভিযোগে তিন শিক্ষকের নামে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। অভিযুক্ত ওই তিন শিক্ষক গ্রেফতার এড়াতে বিদ্যালয় ছেড়ে গাঁঢাকা দিয়েছে। ফলে বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের পড়া লেখা মারাক্তক ভাবে ব্যাহত হচ্ছে। জানা যায়, গত ৪মার্চ বৃহস্পতিবার বিদ্যালয়ের সিনিয়র সহকারী শিক্ষক আব্দুছ ছাত্তার শিক্ষার্থীদের হট্টগোল থামাতে জুতাপেটা করে। এ নিয়ে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মধ্যে ব্যাপক প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়। খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ সেলিম রেজা, উপজেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ নাছির উদ্দিন ও ওসি মিজানুর রহমান ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার শিক্ষার্থীদের জুতাপেটার ঘটনা সহ ওই বিদ্যালয়ের ব্যাপক অনিয়ম, অব্যবস্থাপনা, শিক্ষকদের দুর্ণীতি সহ নানা কারণে বিদ্যালয়ের পড়ালেখা মুখ থুপড়ে পড়ার অভিযোগ পান। এসব বিষয়ে তদন্ত পূর্বক প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ইউএনও শিক্ষা অফিসারকে প্রধান করে ৫ সদস্য বিশিষ্ট একটি কমিটি গঠন করে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য নির্দেশ দেন। এদিকে জুতাপেটার ঘটনার সাথে জড়িত ওই শিক্ষক এবং ঘটনাটি ধাঁমাচাপা দেয়ার চেষ্টার অপরাধে অভিভাবকদের পক্ষ থেকে প্রধান শিক্ষক মাহবুবুর রহমান, সহকারী শিক্ষক মজিবর রহমান ও আব্দুছ ছাত্তারকে আসামী করে থানায় পৃথক ২টি অভিযোগ দায়ের করা হয়। এ অভিযোগে গ্রেফতার এড়াতে ওই ৩শিক্ষক বিদ্যালয় ছেড়ে গাঁঢাকা দিয়েছেন। ঝিনাইগাতী থানার ওসি মিজানুর রহমান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।