| |

নান্দাইল সাব রেজিস্ট্রার অফিসে ব্যাপক অনিয়ম দূর্নীতির অভিযোগ ॥ দলিল দাতা-গ্রহিতারা বিপাকে

নান্দাইল প্রতিনিধিঃ ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার সাব রেজিস্ট্রার অফিসে সাম্প্রতিককালে ব্যাপক অনিয়ম, দূর্নীতি ও রাজস্ব ফাঁকির গুরুতর অভিযোগ পাওয়া গেছে। প্রাপ্ত অভিযোগে প্রকাশ নান্দাইল সাব রেজিস্ট্রার অফিসে নবযোগদানকারী কর্মকর্তা মোঃ নূর নেওয়াজ (একাধিক বিভাগীয় মামলায় তদন্তাধীন) যোগদান করার পরপরই সকল নিয়মকানুন পাল্টে দিয়েছেন। তার দপ্তরে যেকোন দলিল রেজিস্ট্রি করতে হলে অফিস সহকারী চন্দনা পন্ডিতের নিকট ১৮০০ থেকে ৩০০০টাকা সেরেস্তা ফিস জমা দিতে হয়। এছাড়া কাগজপত্রে/জাতীয় পরিচয় পত্রে সামান্য কোন ভূলত্রুটি থাকলে মোটা অংকের সেলামী ছাড়া কোন দলিল রেজিস্ট্রি করেন না। সরকারী রাজস্ব ফাঁকি দেওয়ার জন্য জমির অবস্থান পরিবর্তন করা তার নিত্যনৈমিত্তিক ব্যাপার। কান্দা জমিকে নামা জমি বানানো, বাজার পৌর সভা এলাকার জমির তথ্য গোপন করে জমি রেজিস্ট্রি করে সরকারের লাখ লাখ টাকার রাজস্ব ফাঁকি দেওয়া হচ্ছে। প্রকাশ্যে এজলাসে না বসে সাব রেজিস্ট্রার তার অফিসে দলিলে স্বাক্ষর করেন। কোন দলিল লেখক/জমির দাতা-গ্রহিতা তার সাথে কথা বলতে পারেননা। অফিস সহকারী চন্দনা পন্ডিতের বিরুদ্ধে জমির দাতা গ্রহিতাদের সাথে অশালীন আচরণ করতে দেখা যায়। প্রকাশ্যে তিনি ঘুষ নেওয়ার কথা স্বীকার করে বলেন রাজনৈতিক নেতা সহ অনেককে টাকা দিতে হয়। ফলে সেরাস্তা ফিস আদায় করে থাকি। বর্তমানে নান্দাইল সাব রেজিস্ট্রার অফিসের দলিল লেখক সমিতির সভাপতি পদ নিয়ে ঈশ্বরগঞ্জ সিনিয়র সহকারী জজ আদালতে মামলা চালু আছে। দলিল লেখক সমিতির নেতা মোঃ রিয়াজ উদ্দিন, ইমাম হোসেন, রিপন দেবনাথ ও রাসেল স্থানীয় সাংবাদিকদের জানান, অফিস সহকারী চন্দনা পন্ডিতকে সেরেস্তা ফিস নিতে নিষেধ করা হলেও তিনি তা মানেন না। বরং হুমকি দিয়ে বলেন দলিলের লাইসেন্স বাতিল করা হবে। সরকারের যেকোন সংস্থা থেকে প্রকাশ্যে অথবা গোপনে অফিস চলাকালীন সময়ে তদন্ত করা হলে ঘুষ আদান প্রদানের বিষয়টি প্রকাশ্যে দেখা যাবে। জনগণের জানার জন্য সিটিজেন চার্টার বোর্ড প্রকাশ্য স্থানে টানানোর বিধান থাকলেও নান্দাইল এসআর অফিসের ভিতরে এই বোর্ড টানানো হয়েছে। স্থানীয় সর্বস্তরের ভূক্তভোগী মহল অবিলম্বে নান্দাইল সাব রেজিস্ট্রি অফিসের অনিয়ম-দূর্নীতির বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের জোর দাবী জানিয়েছেন। অপরদিকে বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন নান্দাইল উপজেলা শাখার নেতৃবৃন্দ নান্দাইল এসআর অফিসের সীমাহীন দূর্নীতির খবরে উদ্বেগ প্রকাশ করে অবিলম্বে সকল অনিয়ম-দূর্নীতি বন্দ করার জন্য উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।