| |

ত্রিশালে বাহাদুরপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় পানির ব্যবস্থা না থাকায় শিক্ষার্থীদের চরম দুর্ভোগ-ইউএনওর ক্ষোভ

রফিকুল ইসলাম শামীমঃ
ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার বালিপাড়া ইউনিয়নের বাহাদুরপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পানির ব্যবস্থা না থাকায় স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকা ও বিদ্যালয়ে অধ্যায়নরত শিক্ষার্থীদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। নবাগত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু জাফর রিপন বিদ্যালয়টি পরিদর্শন করতে গিয়ে পানির এমন অব্যবস্থাপনা দেখে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। তিনি অবিলম্বে যাদের কারনে বিদ্যালয়টিতে পানি নেই তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন।
জানাযায়-২০১৪ সালে বাহাদুরপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের জন্য জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর হতে ৭ লাখ টাকা ব্যয়ে একটি আধুনিক ডাবল ওয়াশ ব্লক নির্মান করা হয় যার কাজ ২০১৪ সালের ১৫ জুন শেষ হয়। ওয়াশ ব্লকের নির্মান কাজ করেন জিমি এন্টার প্রাইজ নামে ফুলবাড়ীয়া উপজেলার একটি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান।
বিদ্যালয় কতৃপক্ষ জানান ওয়াশ ব্লক টি নির্মান করলেও পানির মর্টার সংযোগ না দেয়ায় ওয়াশ ব্লকটি আজো অকেজো হয়ে আছে.যা এখন ব্যবহারের অনুপযোগী।
জনস্বাস্ত্য অধিদপ্তর ত্রিশালের ব্যবস্থাপনায় কিছুদিন আগে বিদ্যালয়টিতে ৮৫ হাজার টাকা ব্যয়ে একটি টিউবয়েল বসানো হয়। টিউবয়েলটি বসানোর কিছুদিনের মাথায় তা অকেজো হয়ে যায়।
বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা মাহবুবা বিলকিছ জানান-টিউবয়েলের মান এতো খারাপ ছিল যে কিছুদিন যেতে না যেতেই টিউবয়েলটিও অকেজো হয়ে যায়। তিনি বলেন বিদ্যালয় হতে প্রায় ৫শত গজ দূরে একটি ডিপটিউবয়েল রয়েছে তা ছাড়লে আমরা সেই ডিপটিউবওয়েল থেকে পানি এনে আমাদের ও আমাদের বিদ্যালয়ের ছোট ছোট ছেলে মেয়েদের পানি খেতে হয় এবং ব্যবহার করতে হয়। এতো দূর থেকে পানি এনে তা ব্যবহার করতে হচ্ছে এতে এখন আমাদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।
এব্যাপারে উপজেলা ইঞ্জিনিয়ার অফিসের উপসহকার প্রকৌশলী আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন-আমার জানামতে বিদ্যালয়টিতে ওয়াশ ব্লক ও মাঠে টিউবয়েল থাকায় নতুন যে ভবন হচ্ছে তাতে পানির ব্যবস্থার ইস্টিমেট করা হয়নি। ভবনের কাজ অত্যান্ত ভাল মানের হয়েছে। নতুন ওয়াশ ব্লক অকেজো থাকা অত্যান্ত দুঃখ জনক।
এব্যাপারে ত্রিশাল উপজেলা জন স্বাস্থ্য প্রকৌশল অফিসে যোগাযোগ করা হলে দায়িত্বপ্রাপ্ত উপসহকারী প্রকৌশলী রহিদুদজামানকে না পাওয়া গেলেও অফিস সহকারী মুঞ্জুরুল হক জানান-কোন কারনে হয়তো নষ্ট হয়ে আছে আমরা তা দেখবো।
এ ব্যাপারে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা সৈয়দ আহমেদ জানান-শুধু বাহাদুরপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নয়,আরো অনেক গুলো বিদ্যালয়ে এই ওয়াশ ব্লক অকেজো হয়ে আছে,বিদ্যালয় গুলোতে বসানো টিউবয়েল গুলো ও অকেজো হয়ে আছে। আমরা বার বার তাগিদ দেওয়ার পর ও তার কোন সুরাহা পাচ্ছিনা।