| |

ঝিনাইগাতীর পাইকুড়া কেন্দ্রে ভোট কারচুপির অভিযোগ

ঝিনাইগাতী প্রতিনিধি : শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার পাইকুড়া এ আর পি উচ্চ বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রে ভোট কারচুপির অভিযোগ এনে পুনঃগণনার দাবী জানিয়েছে দুই প্রতিদ্বন্দী ইউপি সদস্য প্রার্থী। এ দু’প্রার্থীরা হলেন, হাবিবুর রহমান প্রতীক ঘুড়ি ও হাছেন আলী প্রতীক বৈদ্যুতিক পাখা। অভিযোগে প্রকাশ, গত ৭মে শনিবার ৪র্থ ধাপে এ উপজেলার ৭টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এ নির্বাচনে ঝিনাইগাতী সদর ইউনিয়নের পাইকুড়া ৮নং ওয়ার্ড থেকে ৭জন প্রার্থী মেম্বার পদে প্রতীদ্বন্দীতা করেন। এ নির্বাচনে সংশ্লিষ্ট কর্তাব্যক্তিরা ভোট গণনার সময় কারচুপির মাধ্যমে বিজয়ী প্রার্থীকে পরাজিত দেখিয়ে পরাজিত প্রার্থী আসাদুজ্জামান প্রতীক মোরগকে ৩০৭ ভোটে বিজয়ী ঘোষনা করেন। বিজয়ী প্রার্থী হাবিবুর রহমানের প্রাপ্ত ভোট উল্লেখ করা হয়েছে ৩০১টি। হাবিবুর রহমান ও হাছেন আলীর অভিযোগ, ভোট গণনরা সময় তাদের এজেন্টকে ক্ষক থেকে বের করে দেয়া হয়। সংশ্লিষ্ট কর্তাব্যক্তিদের কাছে হাবিবুর রহমান ও হাছেন আলী তাদের প্রাপ্ত ভোট পুনঃগণনার দাবী জানান। এ সময় ওই ভোট কেন্দ্রে আইন শৃংখলার কাজে নিয়োজিত সদস্যগন হাছের আলী ও হাবিবুর রহমানসহ তাদের সমর্থকদের মারধর করে। এ ব্যাপারে হাছেন আলী ও হাবিবুর রহমান ওই কেন্দ্রে তাদের প্রাপ্ত ভোট পুনঃগণনার জন্যে শেরপুর জেলা নির্বাচন কর্মকর্তাসহ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ পত্র প্রেরণ করেন।