| |

চিকিৎসাসেবাহীন ক্যান্সার আক্রান্ত বীর মুক্তিযোদ্ধা মমতাজ !

সৌমিন খেলন : দুরারোগ্য ব্যাধি ক্যান্সারে আক্রান্ত জাতীর শ্রেষ্ঠ সন্তান নেত্রকোনার বাসিন্দা বীর মুক্তিযোদ্ধা মমতাজ উদ্দিন। স্ত্রী ও পাঁচ ছেলে-মেয়েকে নিয়ে পৌর শহরের পূর্ব কাটলী এলাকায় ছোট্ট এক কুঁড়ে ঘরে তাঁর বসবাস। মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যরা দাবি করেন, ক্যান্সারে চিকিৎসার খরচ বহন করতে গিয়ে তাদের পরিবার এখন নিঃস্ব। বর্তমান সময়ে চিকিৎসার অভাবে তীল তীল করে নীরবে শেষ হয়ে যাচ্ছেন মমতাজ। উপার্জনের লোক না থাকায় এদিকে সংসার চালাতে স্ত্রী, সন্তানরা পড়েছেন বিপাকে। গৃহকর্তা ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার পর থেকে সন্তানদের পড়ালেখাও বন্ধ হয়ে যাওয়ার পথে জানিয়েছেন, মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী দিলরুবা বেগম। তিনি বলেন, সরকারের ঘোষণাসুযায়ী চিকিৎসা ক্ষেত্রে একজন মুক্তিযোদ্ধা যে সুযোগ সুবিধা পাওয়ার কথা তাও পাচ্ছেন না তার স্বামী। মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে যে মাসিক ভাতা পাওয়া কথা তা পান কি না জানতে চাইলে তিনি জানান, মাসিক ভাতা পাওয়া যায়। কিন্তু সন্তানদের পড়ালোখার খরচ চালিয়ে সাত সদস্যের পরিবার নিয়ে খেয়ে পড়ে কোনভাবেই চলা যায় না। এখন স্বামী আবার ক্যান্সারে আক্রান্ত ! ওই টাকা দিয়ে খাবোই কি আর চিকিৎসা চালাবো কি ভাবে? সন্তানদের পড়ালেখা সম্পর্কে দিলরুবা জানান,বড় মেয়ে অনার্স চতুর্থ বর্ষে, দ্বিতীয় মেয়ে দ্বিতীয় বর্ষে, ছেলে এইচ এস সি পাশ, তৃতীয় মেয়ে নবম শ্রেণীতে, চতুর্থ অর্থাৎ ছোট মেয়ে চতুর্থ শ্রেণীতে পড়ে। নেত্রকোনা জেলা মুক্তিযোদ্ধা ইউনিট কমান্ডার নুরুল আমিন বলেন, ‘মুক্তিযোদ্ধা মমতাজ আমার অত্যান্ত পচন্দের মানুষ। কিন্তু ঘরে বসে থাকলে তো চলবে না। চিকিৎসাসেবা নেওয়ার জন্যে তার পরিবারকেও এগিয়ে যেতে হবে। মমতাজ ক্যান্সার আক্রান্ত জানতে পেরে আমি সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ে যোযোগ করে দ্রুত প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য লিখিত জোর সুপারিশ করেছি।’