| |

ঝিনাইগাতীতে দূরপাল্লার বাসগুলোতে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় ও যাত্রী হয়রানির অভিযোগ

ঝিনাইগাতী প্রতিনিধি : শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে দূরপাল্লার বাসগুলোতে যাত্রীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত হারে ভাড়া আদায় ও যাত্রী হয়রানির অভিযোগ উঠেছে। ঝিনাইগাতী থেকে ঢাকা ৩শ’ টাকার ভাড়া নেয়া ৫শ’ থেকে ৭শ’ টাকা পর্যন্ত। এছাড়া সঠিক সময়ের গাড়ী কাউন্টারে পৌছতে দেরি হচ্ছে ৫/৬ ঘণ্টা। এতে যাত্রীদের চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। এ উপজেলা থেকে প্রায় ২০টি দূরপাল্লার বাস কাউন্টার রয়েছে। এসব কাউন্টার থেকে ডে-নাইট বিভিন্ন সময়ে গাড়ীগুলো ঢাকায় যাতায়াত করে থাকে। প্রতি বছর ঈদের পূর্ব থেকে ঢাকা কর্মস্থল থেকে দেশে ফেরা ও কর্মস্থলে যাওয়ার সময় প্রায় ১৫ দিন ধরে যাত্রীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করা হয়। ঝিনাইগাতী থেকে ঢাকা যাত্রীভাড়া নির্ধারণ করা হয়েছে ৩শ’ টাকা। অথচ এ সময়গুলোতে যাত্রীদের কাছ থেকে ৫শ’ থেকে ৭শ’ টাকা পর্যন্ত নেয়া হচ্ছে। যাত্রীদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে যাতায়াত তাদের পক্ষে কষ্টসাধ্য হয়ে পড়ে। এছাড়া নির্ধারিত সময়ের গাড়ী দেরি কাউন্টারে আসায় যাত্রীদের চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। দূরপাল্লার বাস ছাড়াও স্থানীয় সিএনজি ও অটোরিকসার ভাড়াও বৃদ্ধি করা হয়েছে। অতিরিক্ত ভাড়া আদায় বন্ধের ব্যাপারে ওসি মিজানুর রহমানকে আহ্বায়ক করে ৩সদস্য বিশিষ্ট্য একটি মনিটরিং কমিটি গঠণ করে দেন ইউএনও সেলিম রেজা। ওসি মিজানুর রহমান অতিরিক্ত হারে ভাড়া আদায়ের ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন। অতিরিক্ত ভাড়া আদায়ের বিষয়ে জেলা প্রশাসনের সাথে কথা হলে জেলা প্রশাসক ডাঃ এএম পারভেজ রহিম বলেন, যাত্রীদের চাহিদা মেটাতে প্রয়োজনের তুলনায় অতিরিক্ত যানবাহন কাউন্টারে সংযোগ করতে মালিকপক্ষকে অতিরিক্ত টাকা দিতে হচ্ছে। এ কারণে ঈদের আগে ও পরে ১ সপ্তাহের জন্য যাত্রীদের কাছ থেকে এ অতিরিক্ত ভাড়া নেয়া হচ্ছে।