| |

কিশোরগঞ্জ শোলাকিয়ায় সন্ত্রাসী হামলার ঘটনার ৪ দিন পর পুলিশের মামলা দায়ের

নজরুল ইসলাম খায়রুল: কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়ায় পুলিশের ওপর জঙ্গীদের হামলা ও বন্দুকযুদ্ধের ঘটনার ৪ দিন পর পুলিশ বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছে। রোববার হামলাকারীদের বিরূদ্ধে মামলা দায়ের করেন কিশোরগঞ্জ জেলার পাকুন্দিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি তদন্ত) মোঃ শামসুদ্দিন।
সন্ত্রাস বিরোধী আইনে ২০০৯ সংশোধিত ২০১৩ এর ৬ৃ(২)৮/৯/১০/১২/১৩ ধারায় দায়েরকৃত কিশোরগঞ্জ থানার মামলা নং- ১৪ (৭) ২০১৬। মামলার আসামীরা হলো শরীফুল ইসলাম ওরফে সফিউল ইসলাম ওরফে সাইফুল ইসলাম,দিনাজপুর জেলার ঘোড়াঘাট উপজেলার দক্ষিন দেবীপুর মারুপাড়া গ্রামের আব্দুল হাই প্রধানের ছেলে। জাহিদুল হক ওরফে তানিম, কিশোরগঞ্জ শহরের বয়লা এলাকার– আব্দুস সাত্তারের ছেলে। নিউটাউন কিশোরগঞ্জ। এছাড়া ও অজ্ঞাত আরো কয়েকজনকে আসামী করা হয় ।
মামলার বাদী কিশোরগঞ্জ জেলার পাকুন্দিয়া থানার ওসি (তদন্ত) মোঃ শামসুদ্দিন জানান ,জঙ্গী কাজে উদ্বোধ হ্ইয়া স্বরযন্ত্র সহায়তা ও বাংলাদেশের ভাবমুর্তি ক্ষুন্ন, জননিরাপত্তা সার্বভৌমত্ব বিপন্ন জনসাধারণে মধ্যে আতঙ্ক সৃষ্টি এবং বহিঃবিশ্বে বাংলাদেশের ভাবমুর্তি ক্ষুন্ন করার উদ্দেশ্যে পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে আগ্নেয়াস্ত্র বিষ্ফোরণ দ্রব্য ধারালো অস্ত্র ব্যবহারের মাধ্যমে পুলিশ ও জনগনের উপর আক্রমন করে। নৃশংসভাবে পুলিশ ও জনগনের ওপর সাধারণ নাগরিককে হত্যা ও গুরুতর জখম করা সব অবৈধ গুলি নিজ হেফাজতে রেখে সহায়তা প্রদান করে।
আজও সেখানে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। ঘটনাস্থল আজিম উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন চরশোলাকিয়া এলাকার রাস্তাঘাটে খুব একটা লোক চলাচল নেই। বিভিন্ন স্থানে পুলিশ ও র‌্যাব অবস্থান নিয়ে টহল দিচ্ছে।