| |

জাতীয় পতাকার মান বাঁচাতে গিয়ে আহত শিক্ষকের মৃত্যু

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি : জাতীয় পতাকার মান বাঁচাতে গিয়ে টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার সল্লা ইউনিয়নের ঘুলিয়াদহ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের আহত সহকারি শিক্ষক বেল্লাল হোসেনের (৪৬) মৃত্যু হয়েছে। সোমবার ( ২৫) জুলাই ভোর সাড়ে চারটায় তিনি ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। তাঁর মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। শোক প্রকাশ করেছেন কালিহাতী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোজহারুল ইসলাম তালুকদার, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু নাসার উদ্দিন, উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা জাকিয়া পারভীন, সল্লা ইউপি নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান আব্দুল আলীম, সাবেক চেয়ারম্যান শামীম আল মামুন।
জানা যায়, গত ১১ জুলাই সোমবার সকাল ৯ টায় বিদ্যালয়ে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করার সময় পতাকার লাঠি হিসেবে ব্যবহার করা ষ্টীলের পাইপটি হেলে পড়তে থাকে। উপজেলার সল্লা ইউনিয়নের টেকেরপাড়া গ্রামের আজগর হোসেনের ছেলে শিক্ষক বেল্লাল হোসেন পতাকার মান বাচাঁতে ভারি ষ্টীলের পাইপটি ধরে রাখতে আপ্রাণ চেষ্টা করেন। কিন্তু পাইপটি ভারী হওয়ায় পতাকাসহ ষ্টীলের পাইপটি হাত থেকে ছুটে গিয়ে বিদ্যালয়ের উপর দিয়ে প্রবাহিত বিদ্যুৎতের তারের সাথে লেগে যায় এবং পাইপের নিচের দিকটা শিক্ষকের পায়ের সাথে আটকে যায়। এতে তাঁর শরীরের বেশ কিছু অংশ আগুনে পুড়ে গিয়ে তিনি গুরুতর আহত হন। স্থানীয়ারা তাকে প্রথমে উদ্ধার করে টাঙ্গাইল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানে ১৪ দিন চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় সোমবার ভোরে তিনি মৃত্যুবরণ করেন। গত সোমাবার ( ২৫ জুলাই ) বিকাল ৫ টায় জানাজার নামাজে শেষে সামাজিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়েছে। তাঁর জানাজায় এলাকার গন্যমাণ্য ব্যক্তিসহ বিভিন্ন শ্রেণিপেশার সহ¯্রাধিক মানুষ অংশগ্রহণ করেন।