| |

ধার দেয়া ৫শ’ টাকা ফেরত চাওয়ায় চরাঞ্চল সিরতায় এ.এম. কলেজ ছাত্র হোসেন খুন ঃ পলাতক ঘাতকের পিতা আটক

স্টাফ রিপোর্টার ঃ প্রায় এক বছর আগে ধার (কর্জ) হিসেবে দেয়া ৫শ’ ফেরত চাওয়ার কারণে গত ২৯ সেপ্টেম্বর (মঙ্গলবার) দিবাগত রাত ১১ টায় ময়মনসিংহ সদর উপজেলার চরাঞ্চল চরসিরতা ইউনিয়নের চরদূর্গাপুর গ্রামের বঘাটে রুবেল হোসেন সঙ্গীয়দের নিয়ে পিটিয়ে ও ছরিকাঘাতে হত্যা করেছে নিকটস্থ চরভবানীপুর কোনাপাড়া গ্রামের আরব আলীর পুত্র হোসেন আলী (১৮) কে। নিহত হোসেন আলী ময়মনসিংহের সরকারী আনন্দমোহন কলেজের ছাত্র।
বিদ্যুতের খুঁটির সঙ্গে বেঁধে অমানবিক ভাবে বেদম পিটিয়ে ও পিঠের দিকে ছুরিকাঘাতে হত্যার খবর পেয়ে এলাকাবাসী রাতপ্রায় ১২ টায় ছুটে গিয়ে কলেজ ছাত্র হোসেন আলীর মৃতদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে কোতোয়ালী মডেল থানা পুলিশ রাত প্রায় ১ টায় ঘটনাস্থলে পৌঁছে এবং সুরত হাল রিপোর্ট তৈরী করে রাত প্রায় ২ টায় লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। লাশ উদ্ধার কালে ঘাতক নেতা রুবেল হোসেনকে না পেয়ে পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তার পিতা আইনউদ্দিনকে আটক করে নিয়ে আসে। পরদিন গতকাল বুধবার (৩০ সেপ্টেম্বর) সকালে লাশ ময়নাতদন্তের ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ মর্গে পাঠায়। ময়নাতদন্ত শেষে অপরাহ্নে নিহতের লাশ তার স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করে। লাশের দাফন-কাপনের কারণে রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কোন মামলা দায়ের হয়নি। তবে এব্যাপারে মামলা দায়ের হবে বলে নিহতের পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে। কোতোয়ালী থানা পুলিশ এই নির্মম হত্যা কান্ডের ঘটনা নিশ্চিত করেছে।