| |

ফুলবাড়িয়ায় গণধর্ষণের স্বীকার ৫ম শ্রেণীর ছাত্রী: গ্রেফতার-২

ফুলবাড়িয়া ব্যুরো অফিস : উপজেলার ৪নং বালিয়ান ইউনিয়নের বালাশ্বর গ্রামে নানীর বাড়ীতে বেড়াতে এসে গণ ধর্ষণের স্বীকার হয়েছে ৫ম শ্রেণীর (১২) নামের এক স্কুল ছাত্রী। গত ১৫সেপ্টেম্বর রাত ৯টার দিকে পার্শে¦র বাড়ী হতে টিভি দেখে আসার পথে ধানের ক্ষেতের আইলে এ ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটে। শনিবার (১৭সেপ্টেম্বর) ধর্ষিতার মোতালেব বাদী হয়ে ফুলবাড়ীয়া থানায় ৬ধর্ষকের নাম উল্লেখ করে মামলা করলে পুলিশ রাত ১০টার দিকে ২ধর্ষককে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃতরা হলো একই এলাকার আ. কাদেরের পুত্র শফিকুল ইসলাম (১৮) ও চান মিয়ার পুত্র সুমন (১৯)।
মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, ধর্ষিতার বাবা ময়মনসিংহ শহরে ঝাড়– বিক্রি করে দিনাতিপাত করেন। পবিত্র ঈদুল আযহা উপলক্ষ্যে ঈদের আগের দিন শশুর বাড়ীতে (মেয়ের নানীর বাড়ী) স্ব-পরিবারে বেড়াতে আসে তারা। রাতে টিভি দেখে বাড়ী ফেরার রাস্তায় পূর্ব পরিকল্পিতভাবে ৬বখাটে পালাক্রমে ধর্ষণ করে অবুঝ বালিকাকে। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক সেক্সের বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করে। বর্তমানে ধর্ষিতা ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এস আই আব্দুল কাইয়ুম জানান, প্রাথমিকভাবে ৪জন আসামী করা হলেও দুই ধর্ষক গ্রেফতারের পর তাদের তথ্যের ভিত্তিতে আরও ২জন ধর্ষকের বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া গেছে।
থানা অফিসার ইনচার্জ রিফাত খান রাজিব জানান, ৬ধর্ষকের মধ্যে ২জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে বাকীদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত।