| |

ময়মনসিংহে বিনা উদ্ভাবিত উচ্চ ফলনশীল জাতের বিনাসরিষা-৯ এর মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি : ময়মনসিংহে বাংলাদেশ পরমাণু কৃষি হবেষণা ইনস্টিটিউট (বিনা) উদ্ভাবিত স্বল্প সময়ে আগাম ফলনের বিনাসরিষা-৯ ও বিনাসরিষা-১০ এর মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়েছে। ময়মনসিংহের গৌরিপুর উপজেলার ডৌহাখলা ইউনিয়নের কলাদিয়া চান্দপুর গ্রামে বিনা সরিষা চাষের পর গতকাল দুপুরে এই মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়। এই জাতের সরিষা উৎপাদনের ফলে এই এলাকায় বছরে তিনটি ফসল ফলানো সম্ভব হচ্ছে।
পুষ্টি নিরাপত্তা জাত উদ্ভাবন কর্মসূচি ও জলবায়ু পরিবর্তন ট্রাস্টের অর্থয়ানে আগাম আমন-সরিষা-নাবী বোরো সশ্য বিন্যাস প্রকল্প বাস্তবায়নের লক্ষ্যে রবি মৌসুমে স্থাপিত বিনা উদ্ভাবিত উচ্চ ফলনশীল সরিষা জাত বিনাসরিষা-৯ আবাদের ফলে এই এলাকার কৃষকরা বছরে তিনটি ফসল ফলাতে সক্ষম হচ্ছে। এই এলাকায় তিন শত বিঘা জমিতে বিনা সরিষার আবাদ হয়েছে।
বিনা সরিষা-৯ ও ১০ এর গড় ফলন বিঘা প্রতি প্রায় ৬ মন। বর্তমান বাজার মূল্য অনুযায়ী ১৬ শত টাকা দরে এক বিঘা জমিতে সরিষা আবাদ করে নয় হাজার ছয় শত টাকা আয় করা সম্ভব। যার উপাদন খরচ হচ্ছে আড়াই থেকে তিন হাজার টাকা।
মাঠ দিবস অনুষ্ঠানে ময়মনসিংহ জেলা কৃষক লীগের সভাপতি ও উত্রেকা এনজিও এর নির্বাহি রিচালক আব্দুর রহিম মিন্টু সভাপেিতত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিনা’র মহাপরিচালক ড. শমসের আলী, বিশেষ অতিথি ছিলেন কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের ময়মনসিংহ অঞ্চলের অতিরিক্ত পরিচালক অমিতাব দাস, বিনা’র ব্যবস্থাপন বোর্ডের সদস্য ও সৈয়দ নজরুল কলেজে অধ্যক্ষ কৃষিবিদ ড. এ কে এম আব্দুর রফিক, বিনা’র ফলিত গবেষণা ও সম্প্রসারণ বিভাগের প্রধান ড. এ এফ এম ফিরোজ হাসান, জলবায়ু পরিবর্তন  ট্রাস্ট ফান্ডের প্রকল্প পরিচালক ড. শহিদুল ইসলাম, ময়মনসিঙহ মহানগর কৃষক লীগের সভাপতি এবিএম সিদ্দিক, জেলা কৃষক লীগের সাধারণ সম্পদাক গোলাম মোস্তফা বাবুল প্রমুখ। এছাড়াও অনুষ্ঠােন এলাকার গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ ও স্থানীয় দুই শতাধিক কৃষক উপস্থিত ছিলেন।