| |

পূর্বধলায় থানা পুলিশ ও ডিবি পুলিশের অভিযানে সারে ২২ কেজি গাঁজা উদ্ধার,গ্রেফতার-৪, একজনকে ছেড়ে দিয়েছে ডিবি পুলিশ।

পূর্বধলা প্রতিনিধিঃ গোপন সংবাদের ভিত্তিত্বে নেত্রকোনা সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সানোয়ার হোসেন ও শ্যামগঞ্জ পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের পরিদর্শকএ টি এম মাহমুদুল হক  ও উপ-পরিদর্শক এস আই সুনীল কুমার দাসের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল বৃহস্পতিবার গভীর রাতে পূর্বধলা উপজেলার শুভখাই গ্রামের শাহাবুদ্দিন ছেলে  কামাল মিয়ার বসত ঘর থেকে সারে ১০ কেজি ও পাশের বাড়ীর সামছুলের ঘর থেকে সারে ১২ কেজি  গাঁজা উদ্ধার করে। পুলিশ এ সময় কামাল মিয়া ও সামছুল হককে গ্রেফতার ।
শ্যামগঞ্জ তদন্ত কেন্দ্রের পরিদর্শক এ টি এম মাহমুদুল হক জানান
বৃহস্পতিবার রাতে গোপন সংবাদ পেয়ে পুলিশ অভিযান চালিয়ে সারে ২২ কেজি গাঁজা ও ২ জনকে গ্রেফতার করে।
অপরদিকে কামাল মিয় জানান সে ফলের ব্যবসা করেন। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় নেত্রকোনা ডিবি পুলিশ একই গ্রামের গাঁজা ব্যবসায়ী আঃ হেকিমের বাড়ীতে তল্লাশীর সময সুকৌশলে আঃ হেকিমের লোকজন গাঁজার বস্তা গুলি তাদের  ঘরে রেখে যায়। রাতে পুলিশ তাদেরকে গ্রেফতার করে নিয়ে আসে।
এ দিকে নেত্রকোনা ডিবি পুলিশ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায়  একই গ্রামের গাঁজা ব্যবসায়ী আঃ হেকিম ও তার স্ত্রীকে ২ শত গ্রাম গাঁজা সহ গ্রেফতার করে নিয়ে যায়। পরে রাতেই আঃ হেকিমের স্ত্রী রহস্য জনক কারনে  ছাড়া পেয়ে যায় বলে এলাকা বাসী অভিযোগ করেন।